ঢাকা Wednesday, 24 April 2024

থানায় তরুণকে পেটানোর অভিযোগে এসআই ক্লোজড

নোয়াখালী প্রতিনিধি

প্রকাশিত: 12:16, 1 March 2024

থানায় তরুণকে পেটানোর অভিযোগে এসআই ক্লোজড

নোয়াখালীর সেনবাগ থানায় এক তরুণকে পেটানোর অভিযোগে এসআই সঞ্জয় সিকদারকে পুলিশ লাইনে ক্লোজ করা হয়েছে।    

ভুক্তভোগী আবদুল্লাহ আল নোমান (২৩)  উপজেলার কাদরা ইউনিয়নের উত্তর কাদরা মজুমদার বাড়ির বাসিন্দা। তিনি বর্তমানে জেলা শহরের একটি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।  

বৃহস্পতিবার (২৯ ফেব্রুয়ারি) রাতে এ তথ্য নিশ্চিত করেন পুলিশ সুপারের দায়িত্বে থাকা নোয়াখালীর অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (ক্রাইম অ্যান্ড অপস) মোহাম্মদ ইব্রাহীম। একই দিন দুপুরের দিকে নোমান থানায় আটক বড় ভাইয়ের খবর নিতে গেলে এ ঘটনা ঘটে।

ভুক্তভোগীর পরিবার সূত্রে ও খোঁজ নিয়ে জানা যায়, বৃহস্পতিবার দুপুরের দিকে শাহাদাত হোসেনকে বাড়ির পাশ থেকে ধরে নিয়ে যায় পুলিশ। খবর পেয়ে নোমান থানায় যান। সে সময় থানার এসআই সঞ্জয় সিকদারের কাছে বড় ভাইকে আটকের কারণ জানতে চান তিনি। তখন সঞ্জয় সিকদারের সঙ্গে নোমানের কথাকাটাকাটি হয়। বাকবিতণ্ডার একপর্যায়ে নোমানকে থানার একটি কক্ষে নিয়ে গিয়ে দরজা বন্ধ করে বেধড়ক পেটান এসআই সঞ্জয়। এতে নোমান অসুস্থ হয়ে পড়লে পুলিশ তাকে হাসপাতালে ভর্তি করে।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে এসআই সঞ্জয় সিকদার বলেন, শাহাদাত হোসেনকে গাঁজাসহ আটক করা হয়েছে। তাকে থানায় আনার পর তার আত্মীয়স্বজনের সঙ্গে সামান্য ঝামেলা হয়েছে। নোমান নামে কাউকে তিনি চেনেন না। নোমানকে কারা হাসপাতালে ভর্তি করেছেন, সেটিও তিনি জানেন না।

অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মোহাম্মদ ইব্রাহীম বলেন, আটক ভাইয়ের খোঁজ নিতে যাওয়া তরুণকে থানায় পেটানোর অভিযোগ ওঠায় সেনবাগ থানায় কর্মরত এসআই সঞ্জয় সিকদারকে পুলিশ লাইন্সে ক্লোজ (সংযুক্ত) করা হয়েছে। অভিযোগ তদন্তে ঊর্ধ্বতন পুলিশ কর্মকর্তাদের সমন্বয়ে একটি কমিটি গঠন করা হয়েছে।